টাঙ্গাইলে নতুন বউকে তালাক দিয়ে শাশুড়িকে বিয়ে করলেন জামাই

0

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

মাত্র এগারো দিন আগে ধুমধাম ক’রে বি’য়ে হয়েছিল নূরন্নাহার খাতুনের (১৯)। শ্বশুর বাড়িতে এক সপ্তাহ অ’ব’স্থানের পর বাবার বাড়ি ফিরে যায় গত শু’ক্রবার (১১ অক্টোবার)। পরদিন শনিবার বিকেলেই তার ঘর ভাঙে। বর মোনছের আলী (৩২) শ্বশুর বাড়ি গিয়ে নববধূ নূরন্নাহারকে তা’লা’ক দিয়ে শাশুড়ি মাজেদা বেগমকে (৪০) বি’য়ে ক’রে বীরদর্পে চলে যায়। দু’দিন আগের শাশুড়ি মাজেদা এখন মোনছের আলীর ঘরণী হয়ে দিব্যি সংসার ক’র’ছে’ন। এমন ঘ’ট’নাটি ঘ’টেছে টাঙ্গাইলের গোপালপুর উপজে’লার কড়িয়াটাআটা গ্রামে।

জানা যায়, ধনবাড়ী উপজে’লার হাজরাবাড়ী পূর্বপাড়া গ্রামের মৃ’ত ওয়াহেদ আলীর ছেলে মোনছের আলী গত ২ অক্টোবর গোপালপুর উপজে’লার কড়িয়াটা গ্রামের নূর ইসলামের মেয়ে নূরন্নাহার খাতুনকে বি’য়ে ক’রেন। বি’য়ের পরদিন শাশুড়ি মাজেদা বেগম মেয়ের বাড়ি বেড়াতে যান।

মেয়ের সাথে এক সপ্তাহ সেখানে অ’ব’স্থানের পর গত শু’ক্রবার বর-কনেসহ নিজ বাড়ি ফেরেন। শনিবার সকালে নূরন্নাহার বরের সাথে সংসার করবেন না বলে বায়না ধরেন। শুরু হয় পারিবারিক কলহ। শাশুড়ি মাজেদা বেগম তখন নূরন্নাহার, সংসার না ক’র’লে তিনি নতুন জামাতার সংসার করবেন বলে জানান। এমতাবস্থায় অ’স’হা’য় শ্বশুর নূর ইসলাম গ্রাম্য সালিশ ডাকেন। হাদিরা ইউনিয়ন প’রিষ’দের চেয়া’র’ম্যা’ন আব্দুল কাদের তালুকদার, ইউপি সদস্য ন’জ’রুল ইসলামসহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিগণ সালিশি বৈঠকে বসেন।

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

Leave A Reply

Your email address will not be published.