পাকিস্তানি তরুণীর এক ভিডিওতে ভারতজুড়ে তোলপাড় (ভিডিও)

0

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

উনিশ বছরের তরুণী দানানির মোবিন পাকিস্তানের একজন সোশ্যাল মিডিয়া ”ইনফ্লুয়েন্সার”।

টুইটার বা ইনস্টাগ্রামে তাকে ফলো করেন হাজার হাজার অনুগামী – কিন্তু হালে তার পোস্ট করা ছোট্ট একটা ভিডিও ইন্টারনেটে ঝড় তুলে তার লক্ষ লক্ষ ভক্ত তৈরি করেছে, তুমুল আলোড়ন ফেলেছে সীমান্তের অন্য পারে ভারতেও।

বিবিসি জানিয়েছে, ১৯ বছরের তরুণী দানানির মোবিনের ভিডিওটি সোশ্যাল মিডিয়া এতটাই জনপ্রিয় হয়েছে যে, অল্প কয়েক দিনে লাখ লাখ ফলোয়ারের পাশাপাশি তুমুল আলোড়ন সৃষ্টি করেছে সীমান্তের ওপার ভারতেও।

তার বলা একটা ছোট্ট কথাটি নিয়ে ভারতের বড় বড় ব্র্যান্ডগুলো বিজ্ঞাপনে ব্যবহার করছে। দানানিরকে স্যালুট জানাচ্ছেন বলিউড তারকারাও। ভারতীয় মিডিয়াও মেতেছে দানানিরকে নিয়ে।

আলোচিত সেই কথাটি হলো- ‘পাওরি হোরাই হ্যায়’, বাংলায় যার অর্থ হয়- ‘আমাদের পার্টি চলছে’।

বিবিসি উর্দুকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে দানানির জানিয়েছেন, তার ওই ছোট ভিডিওটি যে এত সাড়া ফেলবে সেটা তিনি কখনো কল্পনাও করেননি।

তিনি বলেন, আমরা বেড়াতে গিয়ে মজা করছিলাম, গান শুনছিলাম। হঠাৎ কী মনে হলো, আমার ফোনটা বের করে ভিডিওটা বানালাম আর পোস্ট করলাম। বাকিটা তো- যাকে বলে ইতিহাস।

বিশেষ করে বিশ্বে যখন এত উত্তেজনা আর বিভাজনের পরিবেশ। আমার হালকা মেজাজে বানানো ভিডিওটা সীমান্তের ওপারের মানুষ উপভোগ করছে জেনে খুব ভালো লাগছে।

কী ছিল সেই ভিডিওতে

মাত্র পাঁচ সেকেন্ডের ছোট্ট একটি ভিডিও, যা দানানির মোবিনকে এভাবে রাতারাতি সুপার স্টারে পরিণত করেছে।

ইনস্টাগ্রামে তার সেই পোস্ট প্রায় ৫০ লাখ মানুষ দেখেছে, আর সেই সংখ্যাটাও বেড়েই চলছে প্রতিনিয়ত।

গত ৬ ফেব্রুয়ারি বন্ধুদের সঙ্গে গাড়িতে করে বেড়াতে যাওয়ার ছোট ভিডিওটি ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করেছিলেন দানানির।

রাস্তায় কয়েক মুহূর্তের জন্য থেমে সেখানে তাকে গাড়ি আর বন্ধুদের দেখিয়ে বলতে শোনা যায়, ‘ইয়ে হামারি কার হ্যায়, অওর ইয়ে হাম হ্যায়, অওর ইয়ে হামারি পাওরি হোরাই হ্যায়!’

বাংলায় যার অর্থ দাঁড়ায়, ‘এটি আমাদের গাড়ি, আর এ হলো আমরা বন্ধুরা, আর এই আমাদের পার্টি চলছে’।

ভিডিওতে ‘পার্টি’ শব্দটিকে দানানির যেভাবে তার অনুকরণীয় উচ্চারণ আর ভঙ্গিমায় ‘পাওরি’র মতো করে উচ্চারণ করেছেন, সেটিই তাকে ভাইরাল করে তুলেছে।

হ্যাশট্যাগ ‘পাওরি হোরাই হ্যায়’ এখন শুধু পাকিস্তানে নয়, ভারতেও সবচেয়ে ‘ট্রেন্ডিং’ টপিকগুলোর শীর্ষে রয়েছে।

ইনস্টাগ্রামে দানানির মোবিনের ভিডিও সাড়া ফেলার প্রায় সঙ্গে সঙ্গেই বলিউডের সঙ্গীতকার যশরাজ মুখাটে সেটিকে ব্যবহার করে একটি ‘ম্যাশ-আপ’ ভিডিও পোস্ট করেন।

বলিউডের পরিচালক বিবেক অগ্নিহোত্রী এরপরই টুইট করেন, দেশভাগের ৭০ বছর পর একটা বাচ্চা মেয়ে মিম দিয়ে ভারত আর পাকিস্তানকে এক সূত্রে গেঁথে ফেলল। গ্রেট জব দানানির আর যশরাজ!

সেই পোস্ট রি-টুইট করে দানানিরও প্রায় সঙ্গে সঙ্গেই জবাব দেন- ‘মাই হার্ট’!

ইন্টারনেটে শুধু ঠাট্টা-রসিকতাই নয়, #পাওরিহোরাইহ্যায়-এর বাণিজ্যিক সম্ভাবনাকে কাজে লাগানোর জন্যও ঝাঁপিয়ে পড়েছে ভারতের নামিদামি বহু ব্র্যান্ড।

ভারতের সবচেয়ে বড় ব্যাংক স্টেট ব্যাংক অব ইন্ডিয়া তাদের মোবাইল অ্যাপের বিজ্ঞাপন করে ফেলেছে এই ‘পাওরি’ দিয়ে।

পিছিয়ে নেই সুইগি বা জোমাটোর মতো ফুড ডেলিভারি চেইনগুলোও, তাদের বিজ্ঞাপনেও জায়গা করে নিয়েছে দানানিরের ‘পাওরি হোরাই হ্যায়’।

১০ দিন আগেও যে পাকিস্তানি তরুণীর নাম ভারতে প্রায় কেউই জানতেন না, তারই বলা মাত্র পাঁচ সেকেন্ডের ছোট একটি কথা এখন ভারতকে মাতিয়ে রেখেছে।

সূত্র: বিবিসি বাংলা ও উর্দু

এআইআ/এইচি

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

Leave A Reply

Your email address will not be published.